1. admin@handiyalnews24.com : admin :
  2. tenfapagci1983@coffeejeans.com.ua : cherielkp04817 :
  3. ivan.ivanovnewwww@gmail.com : leftkisslejour :
   
চাটমোহর,পাবনা সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০২:৪৫ অপরাহ্ন

শিকলে বেঁধে শিশুকে নির্যাতন, ডেকোরেটর ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার

ঝালকাঠি প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : বুধবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ , ৭.১৩ অপরাহ্ণ
  • ১১৭ বার পড়া হয়েছে

ঝালকাঠির নলছিটিতে সুপারি চুরির অপবাদে ১১ বছরের এক শিশু ও তার বাবাকে শিকল দিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে টানা ১১ ঘণ্টা নির্যাতনের ঘটনায় লতিফ খান (৫৫) নামের এক ডেকোরেটর ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার (২১ ফেব্রুয়ারি) রাত ৮টার দিকে উপজেলার তেঁতুলবাড়িয়া গ্রাম থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। এর আগে সোমবার সন্ধ্যায় ভুক্তভোগীর শিশুর বাবা বাবুল হাওলাদার বাদী হয়ে দুজনকে আসামি করে থানায় মামলা করেন। মামলার অপর আসামি স্থানীয় মাংস বিক্রেতা আব্বাস হাওলাদার।

নলছিটি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার রানাপাশা ইউনিয়নের তেঁতুলবাড়িয়া গ্রামের লতিফ খানের বাড়ির আঙিনায় শুকিয়ে রাখা ৪২০টি সুপারি গত রোববার রাতে চুরি হয়। একই গ্রামের বাসিন্দা দিনমজুর মো. বাবুল হাওলাদার ও তার ১১ বছর বয়সী ছেলে মো. ছাব্বিরের বিরুদ্ধে চুরির অভিযোগে এনে তাদের বাড়ি থেকে আটক করে নিজবাড়িতে নিয়ে যান লতিফ খান ও স্থানীয় কয়েকজন যুবক। পরে বাড়ির উঠানে আমড়াগাছের সঙ্গে শিকল দিয়ে বেঁধে মধ্যযুগীয় কায়দায় ওই দুজনের ওপর নির্যাতন চালান তারা।

রাত ১২টার দিকে আব্বাস হাওলাদার কাঁচি দিয়ে ওই শিশুর মাথার চুল কেটে দেন। এরপর সারা রাত গাছের সঙ্গে তাদের বেঁধে রাখা হয়। সোমবার সকালে সংবাদ ছড়িয়ে পড়লে এলাকাজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়। অবস্থা বেগতিক দেখে মুচলেকা নিয়ে বাবুল ও তার ছেলেকে ছেড়ে দেন লতিফ।

নলছিটি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান বলেন, শিকলে বেঁধে শিশু নির্যাতনের ঘটনায় মামলা হয়েছে। ঘটনার মূল হোতা লতিফকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। মামলার অপর আসামিকেও গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

এই সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি। সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২৪ গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রনালয়ের বিধি মোতাবেক নিবন্ধনের জন্য আবেদিত।